Friday , April 12 2024
Breaking News
Home / Entertainment / সিঙ্গাপুর যেতে চান ডিপজল, বললেন এখন আমার জরুরি চেকআপ করা প্রয়োজন

সিঙ্গাপুর যেতে চান ডিপজল, বললেন এখন আমার জরুরি চেকআপ করা প্রয়োজন

বাংলা বড় পর্দার খুবই পরিচিত এক মুখ মনোয়ার হোসেন ডিপজল। তবে পর্দায় সকলেই তাকে ‘ডিপজল’ নামেই চিনে থাকেন। এদিকে সিনেমায় ‘খল’ চরিত্রে অভিনয় করায় অনেকেই তার সম্পর্কে ভুল ধারণা করে থাকেন, কিন্তু বাস্তব জীবনে তার মতো বন্ধু প্রিয় মানুষ খুবই কমই পাওয়া যায়। এই মুহুর্তে শারীরিক ভাবে কিছুটা অসুস্থতার মধ্যে রয়েছে গুণী এই অভিনেতা।

এর আগে গত কয়েক বছর আগে অসুস্থ হয়ে পড়লে সিঙ্গাপুরের মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তাকে। সুস্থ হয়ে দেশে ফেরার পর থেকে এই হাসপাতালে নিয়মিত স্বাস্থ‌্য পরীক্ষা করান তিনি।

করোনা সংকটের কারণে গত দুই বছর সিঙ্গাপুরে যেতে পারেননি ডিপজল। অবশেষে শারীরিক পরীক্ষার জন‌্য সিঙ্গাপুরে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। কিন্তু অজানা কারণে আটকে আছে ডিপজলের ভিসা।

বিষয়টি উল্লেখ করে এই অভিনেতা বলেন—‘ভিসার জন্য আবেদন করেছি। তবে ভিসা পেতে দেরি হচ্ছে। কেন দেরি হচ্ছে বুঝতে পারছি না। করোনা পরিস্থিতির কারণে এটা হওয়া অস্বাভাবিক কিছু নয়। করোনার দুই ডোজ টিকাও নিয়েছি। আশা করি, সিঙ্গাপুর অ্যাম্বাসি দ্রুতই আমাকে ভিসা দিয়ে সহযোগিতা করবেন।’

করোনা সংকটের কারণে চিকিৎসার জন‌্য ব্যাংকক বা ভারতে যেতে চেয়েছিলেন ডিপজল। এখন করোনা সংকট কেটে গেছে, তাই চিকিৎসকের পরামর্শে সিঙ্গাপুরে যাবেন তিনি। এই খলঅভিনেতা বলেন—‘আমি সিঙ্গাপুরেই চেকআপ করাতে চাই। সেখানকার চিকিৎসা প্রক্রিয়া আমার ভালো লেগেছে। তারা খুব ভালো চিকিৎসা করেছেন। এখন আমার জরুরি চেকআপ করা প্রয়োজন।’

 

প্রসঙ্গত, ১৯৯৩ সালে ‘টাকার পাহাড়’ সিনেমায় অভিনয়ের মধ্য দিয়ে বড় পর্দায় আত্মপ্রকাশ করেন ডিপজল। কর্মজীবনে একাধিক জনপ্রিয় ও ব্যবসায় সফল সিনেমা উপহার দিয়েছেন তিনি। এদিকে ২০০৬ সালে ‘চাচ্চু’ সিনেমায় অভিনয়ের মাধ্যমে ভালো চরিত্রে অভিনয় শুরু করেন তিনি। তার অভিনীত সিনেমার মধ্য রয়েছে- ‘ইতিহাস’, ‘কঠিন সীমার’, ‘কোটি টাকার কাবিন’, ‘দাদীমা’, ‘মায়ের চোখ’, ‘দুলাভাই জিন্দাবাদ’, ইত্যাদি।

About

Check Also

সময় নিচ্ছি বিবাহবিচ্ছেদ হয়নি: বুবলী

ঢাকাই সিনেমার শীর্ষ নায়ক ভালোবেসে বিয়ে করেছিলেন শাকিব খান ও অভিনেত্রী শবনম বুবলী। ২০১৮ সালে, …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *