Monday , June 24 2024
Home / Sports / একটু কথা বলতে পারি, কৌতূহলী মন জানতে চায়: শিশির

একটু কথা বলতে পারি, কৌতূহলী মন জানতে চায়: শিশির

এবারের অনুষ্ঠিত টি-২০ বিশ্বকাপে শোচনীয় অবস্থায় পতিত হয়েছে বাংলাদেশের ক্রিকেট দল। পরপর টানা দুই ম্যাচে পরাজয়ের মধ্যে দিয়ে ব্যপক আলোচনা-সমালোচনার সম্মুখীন হয়েছে। এমনকি বাংলাদেশের ক্রিকেট দলের পারফরম্যান্স দেখে ভীষণ ক্ষিপ্ত হয়েছে সমর্থকরা। তবে এবার এই খেলার প্রসঙ্গ তুলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এক পোষ্ট দিলেন সাকিবপত্নী শিশির। তার দেওয়া পোষ্টি তুলে ধরা হলো।

এবারের বিশ্বকাপে বাংলাদেশ প্রত্যাশিত পারফরম্যান্স দেখাতে পারছে না। সেমিফাইনালের স্বপ্ন নিয়ে বিশ্বকাপে পা রাখা টাইগাররা প্রথম ম্যাচেই হেরে বসে দুর্বল স্কটল্যান্ডের কাছে। পরে ওমান আর পাপুয়া নিউগিনির বিপক্ষে জিতে সুপার টুয়েলভে নাম লেখালেও দ্বিতীয়পর্বে এখন পর্যন্ত জয়ের দেখা পায়নি টাইগাররা। প্রথম ম্যাচে শ্রীলঙ্কার কাছে হারের পর বুধবার ইংল্যান্ডের কাছেও অসহায় আত্মসমর্পণ করেছে। এতে টাইগারদের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সেমিতে উঠার স্বপ্ন ধূসর হয়ে গেছে। স্বভাবতই এমন পারফরম্যান্স দেখে সমর্থকরা ভীষণ ক্ষিপ্ত। তাদের সেই হতাশা-ক্ষোভ আরও বেড়েছে সংবাদ সম্মেলনে বাংলাদেশের ক্রিকেটারদের আ/ক্র/ম/ণা/ত্মক আচরণে।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে এখন কেবল ব্যঙ্গ-বিদ্রুপেরই শিকার হচ্ছেন মুশফিক-মাহমুদউল্লাহ-লিটনরা। সমালোচকদের তালিকায় আছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনও। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ম্যাচ হারের পর জোড়া ক্যাচ ফেলা লিটনের সমালোচনা তো করেছেনই, বিসিবি প্রধান কাঠগড়ায় দাঁড় করিয়েছেন অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহকে। সবমিলিয়ে ভীষণ অস্বস্তিকর পরিবেশ বিরাজ করছে বাংলাদেশের ক্রিকেটে। ক্রিকেটার-সমালোচকরা দাঁড়িয়ে গেছেন মুখোমুখি অবস্থানে। এমতাবস্থায় যেন আগুনে ঘি ঢাললেন সাকিব আল হাসানের স্ত্রী উম্মে আল হাসান শিশির।

আজ (বৃহস্পতিবার) বিতর্ক উস্কে দেওয়ার মতো এক ফেসবুক স্ট্যাটাস দিয়েছেন তিনি। যেখানে সাকিবপত্নী লিখেছেন, ‘আমরা কি ২০১৯ বিশ্বকাপ নিয়ে একটু কথা বলতে পারি? আমি ভাবছি কিভাবে আমরা ভারত, পাকিস্তান, ইংল্যান্ড অস্ট্রেলিয়া, নিউজিল্যান্ডের মতো বড় দলের বিরুদ্ধে জিততে পারিনি; যখন আমাদের গতিতারকারা এবং তথাকথিত সেরা ওপেনিং জুটি ছিল! কী ভুল হয়েছিল ওই ম্যাচগুলোতে কৌতূহলী মন জানতে চায়! যদি আমরা সেই ভুলগুলোর কিছু নিয়ে আলোচনা করার জন্য তখন কিছু টক শো করতাম, তাহলে আজ আমাদের ব্যর্থ হতে হতো না!’ সাকিবপত্মী এই ফেসবুক স্ট্যাটাসে সমালোচকদের একহাত নিতে গিয়ে কাকে আসলে আলাদা করে খোঁচা দিলেন বোঝা মুশকিল! তবে ‘গতিতারকা’ আর ‘তথাকথিত সেরা ওপেনিং জুটি’ শব্দগুলো নিয়ে জোর আলোচনা শুরু হয়ে গেছে ইতিমধ্যেই। সেই আলোচনার জল কোথা থেকে কোথায় গড়ায়, সেটাই এখন দেখার!

বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার বাংলাদেশের জাতীয় ক্রিকেট দলের অন্যতম খেলোয়ার সাকিব আল হাসান। তিনি তার ক্যারিয়ারে অর্জন করেছেন ব্যপক সফলতা এবং সম্মাননা। এমনকি তিনি আর্ন্তজাতিক পর্যায়ে প্রথম সারির একজন খেলোয়ার। দেশে-বিদেশে রয়েছে তার অসংখ্য ভক্ত-অনুরাগী।

About

Check Also

বড় দুঃসংবাদ মুস্তাফিজের জন্য, চুক্তি বাতিল, গ্রেপ্তার তামিম

বেশ ঘটা করেই শ্রীলঙ্কার ফ্র্যাঞ্চাইজি টি-টোয়েন্টি আসর এলপিএলে নাম লিখিয়েছিল ডাম্বুলা থান্ডার্স। এর মালিক ছিলেন …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *