Friday , May 24 2024
Breaking News
Home / Entertainment / সত্যি এটা স্বপ্নপূরণের মতো, আমি ভাগ্যবতী: মহিমা

সত্যি এটা স্বপ্নপূরণের মতো, আমি ভাগ্যবতী: মহিমা

বলিউডের মেঘা সুপারষ্টার সালমান খান। তিনি ৩ দশকের বেশি সময় ধরে বলিউড ইন্ডাষ্ট্রিতে কাজ করছেন। এবং অভিনয় করেছেন অসংখ্য সিনেমায়। তার হাত ধরে বলিউডে যাত্রা শুরু করেছেন এমন অনেক অভিনেত্রী রয়েছে। সম্প্রতি এই তালিকায় নাম লেখাতে চলেছেন মহিমা মাকওয়ানার। এই খুশিতে আত্মহারা এই অভিনেত্রী। এবং এই খুশিকে ঘিরে বেশ কিছু কথা জানালেন তিনি নিজেই।

বলিউডে রাজকীয় অভিষেক হতে যাচ্ছে নায়িকা মহিমা মাকওয়ানার। ক্যারিয়ারের প্রথম ছবি হতে যাচ্ছে সালমান খানের মতো মহাতারকার সঙ্গে। তাই আনন্দে আত্মহারা এই নবাগত। শিগগিরই আসতে যাচ্ছে সালমান খানের ছবি ‘অন্তিম: দ্য ফাইনাল ট্রুথ’। সেই ছবিতে মহিমাকে নায়িকা হিসেবে দেখা যাবে। এত বড় তারকার সঙ্গে অভিষেক হওয়া স্বপ্নের মতো মহিমার কাছে। ‘সত্যি, এটা স্বপ্নপূরণের মতো ঘটনা। আমরা তাঁর ছবি দেখে বেড়ে উঠেছি। তাঁর ব্যক্তিত্ব আকর্ষণীয়। সালমানের সঙ্গে কাজ করতে গিয়ে অনুভব করেছি তাঁর তারকাসুলভ ব্যক্তিত্বও। তাঁর সঙ্গে কাজ করার অভিজ্ঞতা এককথায় দারুণ। সব সময় হাসি আর আনন্দে মাতিয়ে রাখতেন আমাদের। আমি সত্যি ভাগ্যবতী, বলিউডে ক্যারিয়ারের শুরুতেই তাঁর মতো তারকার সঙ্গে এবং অন্তিম-এর মতো ছবিতে কাজ করার সুযোগ পেয়েছি।’ সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে বললেন মহিমা।

মহিমা আরও বলেন, সালমানের সঙ্গে কাজ করে মানুষ হিসেবে তিনি নিজেকে আরও সমৃদ্ধ করেছেন। তিনি বলেন, ‘তিনি (সালমান) আমাকে উপদেশ দিয়েছেন, সফলতা নিয়ে যেন কখনো মাথা না ঘামাই। জীবনকে অনেক দূর এগিয়ে নিয়ে গেলেও যেন নিজের শুরুটা কখনো ভুলে না যাই। সালমান আমাকে সব সময় মাটিতে পা রেখে চলার কথা বলেছেন। এখনো তিনি একইভাবে মনোযোগ দিয়ে কাজ করেন। তাঁর চলচ্চিত্র সফরের দিকে তাকালে দেখব যে সাড়ে তিন দশকের বেশি সময় ধরে তিনি রাজত্ব করছেন। এভাবে দীর্ঘ সময় নিজের আসন টিকিয়ে রাখা মোটেও সহজ কথা নয়। আর তাঁর মতো সৎ আর স্পষ্ট কথার মানুষ কম দেখেছি। সালমান ভাইয়ের মনে যা, মুখেও তা-ই।’

মহিমার বয়স যখন পাঁচ মাস। তখন বাবাকে হারান তিনি। বাবা ছিলেন একজন কনস্ট্রাকশনের শ্রমিক। মায়ের কাছেই তিনি বড় হন। পরিবারের একমাত্র উপার্জনকারী সদস্য ছিলেন মহিমা। তাই ১০ বছর বয়স থেকেই হিন্দি সিরিয়ালে অভিনয় শুরু করেন। ‘বালিকা বধূ’, ‘আধুরি কাহানি হামারি’, ‘মরিয়ম খান-রিপোর্টিং লাইভ’ ইত্যাদি সিরিয়ালে দেখা গেছে তাঁকে। ভেঙ্কাটাপুরাম দিয়ে তেলেগু ছবিতে শুরু হয় তাঁর সিনেমাতে অভিনয়। এবার বলিউডে অভিষেক হতে যাচ্ছে। মহেশ মাঞ্জরেকর পরিচালিত অন্তিম ছবিতে সালমান ছাড়া তাঁর ভগ্নিপতি আয়ুশ শর্মা আর যিশু সেনগুপ্তকে দেখা যাবে। ছবির প্রযোজকও সালমান খান। ২৬ নভেম্বর মুক্তি পাবে ছবিটি। ছবিটি মারাঠি ক্রাইম ড্রামা ‘মুলশি প্যাটার্ন’ অবলম্বনে তৈরি হয়েছে। ২০১৮ সালে মুক্তি পাওয়া ‘মুলশি প্যাটার্ন’ দর্শক-সমালোচক মহলে প্রশংসা পেয়েছিল। ছবিটি হিন্দি, তামিল, তেলেগু, কন্নড় ও ওড়িয়া ভাষায় মুক্তি পাবে। ছবিতে সিনেমায় সুরজিৎ সিং গিল নামের একজন শিখ পুলিশ কর্মকর্তার চরিত্রে দেখা যাবে সালমানকে। আর ধনঞ্জয় নামের গ্যাংস্টারের চরিত্রে অভিনয় করতে দেখা যাবে আয়ুশ শর্মাকে।

মহিমা মাকওয়ানাও দীর্ঘ দিন ধরে বিনোদন অঙ্গনে কাজ করছেন। তিনি ১০ বছর বয়স থেকেই মিডিয়াতে কাজ শুরু করেন। এবং অভিনয় করেছেন বেশ কিছু হিন্দি সিরিয়ালে। এমনকি ভারতের তেলেগু ভাষায় নির্মিত সিনেমায়ও অভিনয় করেছেন এই নায়িকা। তবে এবার বলিউড সিনেমায় অভিনয় করাকে নিয়ে বেশ উচ্ছ্বাসিত তিনি।

About

Check Also

হিট স্ট্রোক করে হাসপাতালে শাহরুখ খান, জানা গেল তার শারীরিক অবস্থা এখন কেমন

অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন বলিউড বাদশা শাহরুখ খান। রাইডার্সের প্রথম কোয়ালিফায়ার ম্যাচের পর হিট …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *