Wednesday , April 17 2024
Home / Countrywide / পাকিস্তানকে সমর্থন করা বাংলাদেশিদের বিরুদ্ধে নেওয়া হতে পারে ব্যবস্থা

পাকিস্তানকে সমর্থন করা বাংলাদেশিদের বিরুদ্ধে নেওয়া হতে পারে ব্যবস্থা

বাংলাদেশের নাগরিক হয়ে ক্রিকেট ম্যাচ চলাকালে পাকিস্তানকে সমর্থন করার বিষয়টি মোটেও শোভনীয় হতে পারে না, এমন ধরনের মন্তব্য করেন আ কিউ এম মোজাম্মেল হক যিনি সরকারের মুক্তিযু’দ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী হিসেবে রয়েছেন। তিনি বলেছেন, বাংলাদেশের বিপক্ষে দাঁড়িয়ে ম্যাচ অনুষ্ঠিত হওয়ার সময় কারা পাকিস্তানের পতাকা হাতে নিয়ে সমর্থন করেছিল সেটা খতিয়ে দেখার মাধ্যমে আইনগত ব্যবস্থা নেবে সরকার।

আজ (রবিবার) মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের সম্মেলন কক্ষে ‘স্বাধীন বাংলা ফুটবল দলের জার্সি মুক্তিযুদ্ধ জাদুঘরের কাছে হস্তান্তর’ উপলক্ষে সাংবাদিকদের করা বিভিন্ন প্রশ্নের জবাবে তিনি এই ধরনের কথা বলেন। সাংবাদিকরা কয়েকটি প্রশ্ন করেন যার মধ্যে ছিল: মিরপুর স্টেডিয়ামে বাংলাদেশের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি ম্যাচে কয়েকজন বাংলাদেশিকে পাকিস্তানকে সমর্থন করতে দেখা গেছে, সরকার কি তাদের বিরুদ্ধে কোনো আইনি ব্যবস্থা নেবে?

উত্তরে মুক্তিযুদ্ধমন্ত্রী বলেন, এটা (বাংলাদেশের বিপক্ষে ম্যাচে পাকিস্তানকে সমর্থন করা) দুর্ভাগ্যজনক যদি কেউ করে থাকে। একটা টিমকে যে কেউ সমর্থন করতে পারে। কিন্তু বাংলাদেশের বিপক্ষে পাকিস্তানকে সমর্থন করা দেশপ্রেমিক নাগরিকের জন্য শোভন মনে হবে না। তিনি বলেন, কবি কয়েকশ বছর আগে বলেছেন ‘যেসব বঙ্গেত জন্মি হিংসে বঙ্গবাণী। সেসব কাহার জন্ম নির্ণয় ন জানি।’ এ রকম কিছু তো থাকে। এটা সরকার পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে দেখবে এবং আইনানুগ ব্যবস্থা নেবে। তারা বাংলাদেশের নাগরিক কি না বা কারা তারা আমিও ঠিক জানি না। আমি শুনলাম আমরা দেখব বিষয়টি।

এদিকে মাঠের বাইরে পাকিস্তানের জার্সি গায়ে এক বাংলাদেশি যুবকের ‘পাকিস্তান জিন্দাবাদ’ স্লো’/গা’নের ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভা’ইরাল হয়েছে।

বাংলাদেশের খেলায় অন্য দলকে এভাবে সমর্থন দেওয়ায় শুক্রবার রাতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যক্তিগত টাইমলাইনে এক স্ট্যাটাসে বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের সাবেক অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা লিখেছেন, ‘খেলার সঙ্গে কোনো কিছু মেলানো যায় না এটা ঠিক। কিন্তু খেলাটা যখন আমাদের দেশে আর খেলছে আমাদের দেশ, সেখানে অন্য যে দেশই খেলুক না কেন, তাদের পতাকা তাদের দেশের মানুষ ছাড়া আমাদের দেশের মানুষ উড়াবে, এটা দেখে সত্যি কষ্ট লাগে।’

সবাইকে বাংলাদেশ চিৎকারে গ্যালারি মা’তা/নোর আহ্বান জানিয়ে তিনি আরও লিখেছেন, ‘যে যাই বলুক, ভাই দেশটা কিন্তু আপনার। আজ হয়নি তো কাল হবে, না হলে পরশু হবে। আপনারা পাশে না থাকলে আর হবেই না। হারি বা জিতি স্টেডিয়ামে আমাদের দেশের পতাকা উড়ুক, চিৎকার হোক বাংলাদেশ।’

উল্লেখ্য, পাকিস্তান এবং বাংলাদেশের একটি তিক্ত ইতিহাস রয়েছে যেটা বাংলাদেশের জনগণ ভুলে গেছে বলে মনে হয় কারণ দেখা গেছে বাংলাদেশী ভক্তরা তাদের মাটিতে পাকিস্তান দলকে বেশ আন্তরিকভাবেই সমর্থন জানায়। ঢাকায় প্রথম টি-টোয়েন্টিতে পাকিস্তান দল বাংলাদেশের টাইগারদের পরাজিত করার পর বাংলাদেশি ভক্তরা পাকিস্তানের জয় বেশ উদযাপন করে যে দৃশ্য প্রকৃতপক্ষে ভাববার বিষয়। “পাকিস্তান, বাংলাদেশ। উভয়ই একই,” বাংলাদেশের একটি সংবাদ মাধ্যমের সাথে কথা বলার সময় পাকিস্তান ক্রিকেট দলের জার্সি পরিহিত এক ব্যক্তি বাংলায় বলেছিলেন। কে ম্যাচ জিতলো সেটা কোন ব্যাপার না। একই সমর্থক বলেন, এটা দুর্ভাগ্যজনক যে দুই দেশ এখন বিভক্ত। তিনি বলেন, এটা আমাদের কষ্ট।

“আমি খুশি যে পাকিস্তান ম্যাচ জিতেছে,” এমনটাই বলেছিলেন আরেক বাঙালি ভক্ত। “আমি পাকিস্তানকে সমর্থন করি [যদিও] আমি একজন বাংলাদেশী।”

 

 

About

Check Also

এবার সতর্কবার্তা দিল জার্মান দূতাবাস

ঢাকার জার্মান দূতাবাস অর্থের বিনিময়ে দূতাবাসের ভিসা অ্যাপয়েন্টমেন্ট বা জার্মান চাকরির চুক্তির প্রতিশ্রুতি দেয় এমন …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *