Saturday, February 4, 2023
বাড়িopinionবান্ধবীর স্বামী বাগিয়ে নিয়েছেন অভিনেত্রী তমালিকা, ঠোঁট কামড়ে চোখ টিপে কাবু করেন...

বান্ধবীর স্বামী বাগিয়ে নিয়েছেন অভিনেত্রী তমালিকা, ঠোঁট কামড়ে চোখ টিপে কাবু করেন ভদ্রলোককে : মিলি

Ads

বাংলাদেশের নাটকের এক সময়ের জনপ্রিয় অভিনেত্রী ছিলেন তমালিকা। একাধারে তিনি বাংলা নাটকে অসংখ কাজ করেছেন এবং ব্যাপক জনপ্রিয়তা অর্জন করে নিয়েছেলন এবং সেই সাথে নিজেকে ওই সময়টাতে শীর্ষ অভিনেত্রীদের কাতারে নিতে সক্ষম হয়েছিলেন তিনি। তবে এখন আর নিয়মিত অভিনয় করেননা তিনি। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তমালিকাকে নিয়ে একটি স্ট্যাটাস দিয়েছেন প্রবাসী লেখিকা মিলি সুলতানা। নিচে তার সেই স্ট্যাটাসটি তুলে ধরা হল –

আপনারা কি কোনো হিন্দি ফিল্মের অভিনেত্রীদের পঁচা ভঙ্গিতে খাবার খেতে খেতে লাইভে আসতে দেখেছেন? আমি দেখিনি। আমাদের দেশের খুচরা অভিনেত্রী মডেলদের দেখা যায় পোশাক আশাকে সাজসজ্জায় ইন্ডিয়ান নায়িকাদের অনুসরণ করেন। তাদের মত হট কামুক পোজ দিয়ে পুরুষদেরকে মাস্টারবেশনে প্রলুব্ধ করছেন। কিন্তু ইন্ডিয়ান নায়িকাদের মত পার্সোনালিটি তারা গেইন করতে পারেন না। বাংলাদেশের কিছু রিটায়ার্ড করা অভিনেত্রী মডেলদের কান্ডজ্ঞান লোপ পেতে দেখা গেছে। সেদিন চয়নিকার সহোদরা তমালিকা কর্মকারকে দেখলাম একটি শপিংমলের ফুডকোর্টে বসে বিচ্ছিরি ভঙ্গিতে খাবার চিবুতে চিবুতে লাইভ করেছেন। খাবার খাওয়ার ভঙ্গি দেখে মনে হল কার্টুন ছবি দেখছি। পেট গুলিয়ে উঠলো। এমন ব্যক্তিত্বহীন মানুষও হয়??

দীপাবলিতে তমালিকার সিঁথিতে সিঁদুর দেখে কয়েকজন তার সিঁদুরের মাহাত্ম্য সম্পর্কে জানতে চেয়েছেন। ঘটনা হচ্ছে, শোভা নামে এক রমণীর সাথে তমালিকা ফ্রেন্ডশিপ পাতেন। শোভার স্বামীকে দেখে তমালিকা মনে মনে যোগ বিয়োগ গুণ ভাগ বিবিধ অঙ্ক কষতে লাগলেন। শোভার সাথে ফ্রেন্ডশিপের খেপ চালাতে চালাতে শোভার স্বামীর দিকে তাকিয়ে ঠোঁট কামড়ে চোখ টিপে তাকে চকোলেটের লোভ দেখিয়ে কাবু করেন ভদ্রলোককে। স্বামী স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়াঝাটি কলহের সূত্রপাত করে দেন তমালিকা। বান্ধবী শোভা স্বামী প্রবীনের সাথে রাগারাগি করে বাসা ছেড়ে চলে যান। ভাবলেন মান অভিমান শেষ হলে বাসায় তো একদিন ফির‍তেই হবে। তাছাড়া স্বামী স্ত্রীর ঝগড়াঝাটি তো খুব স্বাভাবিক ব্যাপার।

কিন্তু শোভা হয়ত দুঃস্বপ্নেও ভাবতে পারেননি তার মতলববাজ বান্ধবী তমালিকা তারই গড়া সংসার থেকে তাকে কিকড আউট করে দেবেন। বান্ধবীর স্বামীর ঘাড়ে মামদো ভূতের মত চেপে বসলেন তমালিকা। শোভা দুঃখকষ্টে একাকার হয়ে বললেন, “শয়তান মালিকা হামিরা, তোর মনে এ-ই ছিল?? তোকে আমি অভিশাপ দিচ্ছি, তোর ফিগার দিন দিন লিলিপুটের আকার ধারণ করবে।তোর সেলফির পোজ দেখলে মানুষ ভয় পাবে………”!! এই হল তমালিকার সিঁদুর রহস্য। বান্ধবীকে তার সংসার থেকে উচ্ছেদ করেছেন গুণবতী তমালিকা। বান্ধবীর স্বামী ছিনতাই করে তৃপ্তির ঢেঁকুর তুলেছেন তমালিকা। অন্যের দাম্পত্যজীবনে সন্ত্রাস করা দুই সহোদরার জৈবিক অভ্যাস।

Looks like you have blocked notifications!
Ads
[json_importer]
RELATED ARTICLES

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

Most Popular

Recent Comments