Friday, March 24, 2023
বাড়িopinionপ্রধানমন্ত্রীর সমালোচনা করায় পররাষ্ট্রমন্ত্রী ক্ষেপেছেন মার্কিন এক ধনকুবের ওপর : শামসুল

প্রধানমন্ত্রীর সমালোচনা করায় পররাষ্ট্রমন্ত্রী ক্ষেপেছেন মার্কিন এক ধনকুবের ওপর : শামসুল

Ads

এবার মার্কিন এক ধনকুবের এর সমালোচনায় ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এস জয়শঙ্কর। জানা গেছে ওই ব্যাক্তি এক সম্মেলনে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে নিয়ে নানা সমালোচনা করেছেন যার প্রেক্ষিতে এই জয়শঙ্কর ক্ষেপেছেন তার উপর। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এই বিষয়ে একটি স্ট্যাটাস দিয়েছেন লেখক শামসুল আলম। নিচে সেটি দেওয়া হল-

 

ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এস জয়শঙ্কর ক্ষেপেছেন মার্কিন এক ধনকুবের ওপর।
৯২ বছর বয়সী জর্জ সোরেস সম্প্রতি জার্মানির মিউনিখে এক আন্তর্জাতিক সম্মেলনে আদানি গোষ্ঠীকে কেন্দ্র করে গড়ে ওঠা বিতর্ক নিয়ে কথা বলার সময় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সমালোচনা করেছিলেন। তিনি বলেছিলেন, আদানিকাণ্ডের ফলে ভারত সরকারের ওপর মোদির প্রভাব কমবে। আদানি শিল্পগোষ্ঠীর বিরুদ্ধে শেয়ারবাজারে জালিয়াতি ও কারচুপির যেসব অভিযোগ উঠেছে, মোদিকে তার জবাবদিহি করতে হবে সংসদে ও বিনিয়োগকারীদের কাছে। ভারতে গণতন্ত্রের নবজাগরণ ঘটবে।
আর এতেই চটেছেন জয়শংকর! তিনি সোরেসকে ‘বুড়ো, ধনী, জেদি ও বিপজ্জনক’ আখ্যায়িত করে বলেন, ‘এ ধরনের মানুষ ভাবেন, তিনি যা মনে করেন, সেটাই ঠিক। সারা বিশ্ব সেই ভাবনাতেই চলবে।’

জয়শঙ্কর আরও বলেন, ‘নিউইয়র্কে বসে এ ধরনের মানুষ ভাবেন, তাদের ইচ্ছেমতো পৃথিবী চলবে। এজন্য তারা প্রচুর অর্থ খরচ করেন। তারা মনে করেন, তাদের পছন্দমতো প্রার্থীরা যদি জেতে তবে নির্বাচন ভালো হয়েছে। আর তা না হলে সেই দেশের গণতন্ত্র খারাপ। মজার বিষয় হলো, তারা বোঝাতে চান, সমাজের স্বার্থে এসব করা হচ্ছে। বাস্তবে এটা ভণ্ডামি।’ জয়শঙ্কর বলেন, ‘এ ধরনের কথাবার্তা আমাদের দুশ্চিন্তাগ্রস্ত রাখে। কারণ আমরা জানি, ঔপনিবেশিকতা কী। আমরা সেই অভিজ্ঞতার মধ্য দিয়ে গিয়েছি। বাইরের শক্তি নাক গলালে কী বিপদ হয়, তা আমাদের জানা।”

জয়শংকর বাবুর কথা বাংলাদেশের অনেক মানুষের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছে। তারা বলছেন, জয়শংকর যেমন ঔপনিবেশিকতার কথা তুলেছেন, তেমনি বাংলাদেশের মানুষও মনে করে দিল্লি বাংলাদেশের ওপর ছড়ি ঘোরাচ্ছে- এদেশের রাজনীতি, রাষ্ট্রক্ষমতা, এমনকি প্রশাসন যন্ত্র কেনো দিল্লির কথায় চলবে? কেনো একজনকে বিনাভোটে ক্ষমতায় রাখতে সুজাতা সিং, বিনয় কোয়াত্রাদের মিশন আসবে বার বার? এটাওতো ঔপনিবেশিকতা।

জয়শংকর যেমনটা ভাবছেন, বাংলাদেশের মানুষও একইরকম ভেবে চিৎকার করছে- এদেশ থেকে তোমার কালো হাত গোটাও, ভারত।
মিস্টার জয়শংকর, আপনি আচরি ধর্ম শিখাও অপরে!!

Looks like you have blocked notifications!
Ads
[json_importer]
RELATED ARTICLES

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

Most Popular

Recent Comments