Tuesday, January 31, 2023
বাড়িopinionমিম কতোটা সুশীল কতোটা সাবিত্রী বেবাকে জানে, পরীমণি বেহুদা সন্দেহ করেননি মিমকে...

মিম কতোটা সুশীল কতোটা সাবিত্রী বেবাকে জানে, পরীমণি বেহুদা সন্দেহ করেননি মিমকে : মিলি

Ads

পরীমনি এবং রাজ্যের সংসারে অশান্তি নিয়ে এখন বিনোদন পাড়ায় শুরু হয়েছে নানা আলোচনা। মূলত পরীমনি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে স্ট্যাটাস দিয়ে জানিয়েছেন এই ঘটনার কথা। এর পর থেকেই শুরু হয় ভক্তদের কৌতুহূল। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এই প্রসঙ্গে স্ট্যাটাস দিয়েছেন লেখক মিলি সুলতানা। নিচে সেটি তুলে ধরা হল-

কোথায় যেন পড়েছিলাম বিদ্যা সিনহা সাহা মিম সম্পর্কে হুমায়ূন আহমেদ বলেছিলেন, “মিমের একটি জিনিস তার খুব অপছন্দের। প্রতি দশমিনিট অন্তর অন্তর মিম মেকআপের দিকে যতটা গুরুত্ব দেন এই গুরুত্বটা অভিনয়ের দিকে দিলে ভালো করতেন।” নিউইয়র্কের মুভি থিয়েটারে গিয়ে সপরিবারে পরান দেখেছি। অনেস্টলি বলি, মিমের অভিনয় আমার ততোটা ভালো লাগেনি, যতোটা আশা করেছিলাম। মিমের ফেসিয়াল এক্সপ্রেশন আড়ষ্ট প্রকৃতির। মুখাবয়বের অঞ্চলগুলো অভিনয়ের সঙ্গে খেলা করেনা। পরানের শুরু থেকে শেষ অবধি লক্ষ্য করেছি। দামাল দেখিনি, নিউইয়র্কের মুভি থিয়েটারে এলে দেখবো। আমার কাছে মিমকে প্রধান অভিনেত্রীর চাইতে নাচগানে দেখতে ভালো লাগে। মিম লাক্সসুন্দরী। তাকে স্থির সৌন্দর্যে যেন মানিয়ে যায়। অভিব্যক্তির দক্ষতায় মিম এখনো আনাড়ি।

গাজি কালু চম্পাবতীর কিসসা হয়ে যাচ্ছে। আসল কথায় ফিরে আসি, পরীমণি বেহুদা সন্দেহ করেননি মিমকে। ভেতরে ভেতরে কান্ড বহুদূর গড়িয়েছে। ব্যাপারটা পরীমণি বেডরুমে বসে সামাল দেয়ার চেষ্টা নিশ্চয়ই করেছেন। বেডরুম থেকে লিভিংরুমে এসেও চেষ্টা করেছেন। আপনাদের বুঝতে হবে, সিরিয়াস না হলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে মিম রাজ ও রাফিকে ট্যাগ করে পরীমণি এমন সুক্ষ্ম ক্ষোভ প্রকাশ করতেন না। যেসব গুণধররা পরীমণিকে স্ট্যাটাস ডিলিটের পরামর্শ দিয়েছেন, শিল্পীদেরকে যেকোনো উপায়ে রক্ষা করার জোশিলা ঘোষণা দিয়েছেন ব্লা… ব্লা… ব্লা করেছেন তাদেরকে বলি, এই কি রক্ষার নমুনা??পরীমণি রাজ মিম ইস্যুটি তার লিভিংরুমে রাখবেন নাকি গ্যারেজে রাখবেন আপনারা বলার কে??

পরীর লেখা ওই দুই তিনটে লাইনের তর্জমার বিশালতা কিন্তু ব্যাপক। মিম কতোটা সুশীল কতোটা সাবিত্রী ইমেজের বেবাকে জানে। বিদ্যা সিনহা সাহা মিম তার ফেসবুক পেজে কলম সৈনিক/ কীবোর্ড কিপারদের প্রচ্ছন্ন হুমকি দিয়েছেন, কীবোর্ড কিপাররা যদি মিমের গর্ত খুঁড়ে কেঁচোর পরিবর্তে গোখরো সাপ টান মেরে বের করে নিয়ে আসে তবে তাদেরকে তিনি কলার ভেলায় চড়িয়ে নদীতে ভাসিয়ে দেবেন। আমরা দেখেছি এসব হুমকি কিন্তু বুমেরাং হয়ে ফিরে আসে। তখন মিমকে নির্ঘাত বারমুডা ট্রায়াঙ্গলে পর্যবসিত হতে পারে। অতএব মিম, ওয়াচ ইয়োর মাউথ। বিফোর থ্রেট জার্নালিস্ট লুক অ্যাট দ্যা মিরর !!!

Looks like you have blocked notifications!
Ads
[json_importer]
RELATED ARTICLES

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

Most Popular

Recent Comments