Saturday, February 4, 2023
বাড়িSportsমন্ত্রণালয় থেকেই চিঠিটা এসেছে, সেটা পালন করতে আমরা বাধ্য : ব্রিগেডিয়ার জেনারেল...

মন্ত্রণালয় থেকেই চিঠিটা এসেছে, সেটা পালন করতে আমরা বাধ্য : ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মাজহারুল

Ads

প্রতিটি সরকারি ক্ষেত্রগুলোতে দেখা যায় অসাধু কর্মকর্তা কর্মচারীদের দৌরাত্ম রয়েছে এবং সেই সাথে দেখা যায় বিভিন্ন কৌশল অবলম্বন করে তারা তাদের এই কর্মকান্ড সুদূর প্রসারী করে তোলে। এবার এমনই ঘটনা ঘটেছে বিকেএসপিতে প্রতিষ্ঠানটির আধুনিকায়ন করতে গিয়ে বর্তমান মহাপরিচালককে অসন্তুষ্ট করেছেন কিছু অসাধু কর্মকর্তা। ষড়যন্ত্রের অংশ হিসেবে তার বিরুদ্ধে ভিত্তিহীন সব অভিযোগ আনা হয়েছে।

ঘরের শত্রু যখন বিভীষণ হয়, তখন আদর্শ ও ন্যায়ের পথে থাকা ব্যক্তিকে অসুবিধার সম্মুখীন হতে হয়। এমনটাই ঘটেছে বাংলাদেশ ক্রীড়া শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বিকেএসপিতে। মহাপরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল একেএম মাজহারুল হক দাবি করেছেন, বিকেএসপির সুনাম ক্ষুণ্ন করার জন্য এমন অপচেষ্টা চালানো হচ্ছে।

নাজমুল আবেদীন ফাহিম, অত্যন্ত সম্মানিত কোচ, যার হাতের কাজ সাকিব-মুশফিকরা বিকেএসপি ছেড়েছিলেন, তিনি বিসিবির গুরুত্বপূর্ণ পদে যোগ দিয়েছেন। ফলে সাম্প্রতিক সময়ে ভালো মানের ক্রিকেটার তৈরি করতে হিমশিম খাচ্ছে সংগঠনটি। দৃশ্যপট পরিবর্তনে ভূমিকা রেখেছেন বিকেএসপির মহাপরিচালক মো. নাজমুল আবেদিন ফাহিম বিসিবির কাঙ্খিত পদ ছেড়ে পুরনো ঠিকানায় ফিরেছেন।

দেশের সেরা সব কোচদের একইভাবে অন্যান্য শাখায় প্রতিষ্ঠানের উন্নতির জন্য আনা হয়। ভালো মানের বিদেশি কোচও আনা হয়। আর এসব করতে গিয়ে বিকেএসপির একাংশের রোষানলের শিকার হন মহাপরিচালক। বিতর্কিত ছগির হোসেনকে পুনর্বহাল করার সিদ্ধান্তের দায় মন্ত্রণালয়ের নির্দেশে মহাপরিচালকের ওপর ন্যস্ত হয়।

বিকেএসপির মহাপরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল একেএম মাজহারুল হক জানান, জনাব ছগির হোসেনের বিষয়টি নিয়ে মন্ত্রণালয়ের একজন অতিরিক্ত সচিবের নেতৃত্বে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। এবং তারা বিধি মোতাবেক এবং আইনানুগভাবে তদন্ত করে তাকে পুনর্বহাল করার সিদ্ধান্ত নেয়। সে অনুযায়ী মন্ত্রণালয় থেকে চিঠি এসেছে। এবং আমরা তা মেনে চলতে বাধ্য।

মেহেদী হাসানের ডক্টরেট ডিগ্রি এবং শিক্ষক ফারহানা বিনতে বারীর নেপাল সফরের অনুমোদন নিয়েও প্রশ্ন উঠেছে। ভর্তি ও বদলি বাণিজ্যের অভিযোগ ওঠে। এ প্রসঙ্গে ব্রিগেডিয়ার জেনারেল একেএম মাজহারুল হক বলেন, তাদের মধ্যে কেউ কেউ অতীতে দুর্নীতি ও অনিয়মের সঙ্গে জড়িত ছিল এবং এ ধরনের দুই কর্মকর্তা-কর্মচারীর বিরুদ্ধে বিভিন্ন অনিয়মের তদন্ত চলছে। তাদের শাস্তি হতে পারে এই ভয়ে তারা এমন জঘন্য কাজ করেছে। তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নিতে হবে।

মহাপরিচালক ব্রি. জে, একেএম মাজহারুল হক। এমনটাই মনে করেন সিনিয়র কোচ নাজমুল আবেদীন ফাহিম। তিনি বলেন, তাদের বিরুদ্ধে কিছু তদন্ত চলছে। আর সে কারণেই হয়তো মহাপরিচালককে টার্গেট করা হয়েছে। আর বিকেএসপিও যে এতে ভুগছে তা হয়তো তারা বুঝতে পারেননি।

বিকেএসপির হকি কোচ জাহিদ আহমেদ রাজু বলেন, তাকে (মহাপরিচালক) বিভিন্নভাবে টার্গেট করা হয়েছে। এটা আসলে সত্য নয়।

উল্লেখ্য, বাংলাদেশের বর্তমান জনপ্রিয় খোলোয়াড় সাকিব মুশফিক এর কোচ হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন নাজমুল আবেদীন ফাহিম তবে জানা গেছে তিনি তার পদ ছেড়ে অন্য পদে স্থানান্তর হয়েছেন যা নিয়ে বেশ অসন্তোষ দেখা দিয়েছে যা রীতিমত আলোচনা তৈরী করেছে সর্ব মহলে

Looks like you have blocked notifications!
Ads
[json_importer]
RELATED ARTICLES

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

Most Popular

Recent Comments